font-help

এই পোস্টটি 1,576 বার দেখা হয়েছে

বনযোগীছড়া পাঠাগারঃ আমাদের স্বপ্ন

বনযোগীছড়া পাঠাগারঃ  আমাদের স্বপ্ন

গত ০৬ জানুয়ারী ২০১২ ইং বনযোগীছড়া গ্রামে একটি সাধারণ পাঠাগার উদ্ধোধন করা হয়। ‘বনযোগীছড়া কিশোর কিশোরী কল্যাণ সমিতি’ এর ব্যবস্থাপনায় পাঠাগারটি পরিচালিত হবে। সমিতির সভাপতি মুকেশ চাক্‌মার সভাপতিত্বে উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন বনযোগীছড়া ইউনিয়ন পরিষদ এর চেয়ারম্যান বাবু সন্তোষ বিকাশ চাক্‌মা। এছাড়া ও বিশেষ অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন যথাক্রমে ১৪৫ নং বনযোগীছড়া মৌজার হেডম্যান বাবু করুণাময় চাক্‌মা, বনযোগীছড়া উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক বাবু মেঘবর্ণ চাক্‌মা , বনযোগীছড়া ইউনিয়ন পরিষদ এর মহিলা সদস্যা জ্যোস্না চাক্‌মা।

ছবি: সমিতির সদস্যবৃন্দ

তালুকদার ও সান্তনা চাক্‌মা এবং সমিতির উপদেষ্টা বাবু মনিন্দ্র লাল চাক্‌মা। সমিতির কার্যকরী সদস্যা মিস জয়মতি তালুকদার ফেন্সি ও কেতন চাক্‌মার উপস্থাপনায় অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন সমিতির কার্যকরী সদস্য ও পাঠাগার বিভাগ এর আহ্বায়ক নির্মল কান্তি চাক্‌মা, এছাড়াও অতিথিবৃন্দ বাদে অন্যান্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন কতরখাইয়া রেজিষ্টার্ড প্রাথমিক বিদ্যালয় এর প্রধান শিক বাবু ধন কুমার দেওয়ান, বনযোগীছড়া সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক বাবু তুষার কান্তি তালুকদার, বনযোগীছড়া সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক বাবু সুগত চাক্‌মা।

‘বনযোগীছড়া কিশোর কিশোরী কল্যাণ সমিতি’ আজ এক যুগ পার করলো। সমিতির অনেকদিনের লালিত স্বপ্ন এই পাঠাগার। নানা সীমাবদ্ধতার কারণে আমরা এতদিন এ পাঠাগার চালু করতে পারিনি। বিশেষ করে সমিতির নিজস্ব অফিস না থাকার দরুণ। অবশেষে বিগত তত্ত্বাবধায়ক সরকারের আমলে শ্রদ্ধেয় রতিকান্ত তঞ্চঙ্গ্যার আন্তরিক প্রচেষ্টায় জেলা পরিষদের অর্থায়নে নির্মিত হয় সমিতির অফিস। অফিস এর জন্য জমি দান করেন ১৪৫নং বনযোগীছড়া মৌজার হেডম্যান বাবু করুণাময় চাক্‌মা। আমরা তাঁদের নিকট বিশেষভাবে কৃতজ্ঞ। বর্তমানে সমিতির পাঠাগারে দুটি দৈনিক পত্রিকা, একটি নিয়মিত কারেন্ট নিউজ সহ প্রায় দুই হাজার বই সংগ্রহ করা হয়েছে। পাঠাগার প্রতিষ্ঠায় আরো যারা বিশেষ ভাবে সাহায্য করেছেন তাদের মধ্যে অন্যতম কবি মৃত্তিকা চাক্‌মা, চাক্‌মা রাজা দেবাশীষ রায়, জাক এর সাধারণ সম্পাদক রনেল চাক্‌মা, সিঙ্গাপুর প্রবাসী বিবর্তন চাক্‌মা, আমেরুল ইসলাম সোহেল, বার্নাড সি, মোঃ আনিসুর রহমান, অম্লান চাক্‌মা, প্রতুল দেওয়ান, সুসময় চাক্‌মা, ড. সেলু বাসিত, জগত জ্যোতি চাক্‌মা, বিধায়ক চাক্‌মা ও রাজাবাবুর সচিব সুব্রত চাক্‌মা উল্লেখযোগ্য। সমিতির অগ্রযাত্রায় তাদের অবদান চিরস্মরণীয় হয়ে থাকবে। বর্তমানে আমরা আরো বই সংগ্রহ করছি। পুরাতন ও নতুন যে কোন বই আমরা গ্রহণ করে থাকি।

আমাদের স্বপ্ন এ পাঠাগারকে আরো সমৃদ্ধ করার। বিশেষ করে এ এলাকার উচ্চ বিদ্যালয় ও প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ছাত্রছাত্রীদের আকৃষ্ট করার জন্য ব্যাপক পরিকল্পনা হাতে নেওয়ার প্রচন্ড ঈচ্ছে আমাদের আছে কিন্তু  বিশেষ করে আর্থিক সমস্যার দরূন এ ব্যাপারে ব্যাপকভাবে আমরা উদ্যোগ নিতে পারছি না। বর্তমানে আমাদের সদস্যদের চাঁদায় লাইব্রেরীয়ানের বেতন পরিশোধ করছি। আমরা জানি না এভাবে আদৌ কতদিন ধারাবাহিকতা বজায় রাখতে পারবো। আমরা আশা করি সচেতন মহল এ ব্যাপারে প্রয়োজনীয় সহযোগীতার হাত বাড়িয়ে দেবেন।

বর্তমানে পাঠাগারের পাশাপাশি অন্যান্য বিশেষ কতগুলো কর্মকান্ড আমরা পরিচালিত করছি। তার মধ্যে অন্যতম জুরাছড়ি উপজেলার প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ছাত্রছাত্রীদের ক্যুইজ প্রতিযোগীতা, উচ্চ বিদ্যালয়ের ছাত্রছাত্রীদের রচনা প্রতিযোগীতা, চাক্‌মা ভাষা ব্যাপকভাবে প্রচার ও প্রসারের জন্য চাক্মা ভাষা শিক্ষার বই বিনামূল্যে বিতরণ। গত জানুয়ারীতে সমিতির উদ্যোগে জুরাছড়ি উপজেলার ০৯ টি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের জন্য বিনামূল্যে চাক্‌মা ভাষা শিক্ষার বই বিতরণ করা হয়।

সমিতির এই এক দশক অগ্রযাত্রায় প্রতিকুল পরিবেশের মধ্যেও আমরা অনেকের কাছ সাহায্য পেয়েছি। বিশেষ করে এ এলাকার সচেতন মহলের, যাদের মধ্যে অন্যতম : প্রতিষ্ঠাতা উপদেষ্টা বাবু মনিন্দ্র লাল চাক্‌মা, বাবু তুষার কান্তি তালুকদার, বাবু করুণাময় চাক্‌মা, বাবু অরুন কুমার দেওয়ান, বাবু কেতন চাক্‌মা, বাবু প্রতিবিন্দু চাক্‌মা উল্লেখযেগ্য।

আমরা স্বপ্ন দেখি এক সুন্দর ভবিষ্যতের, একঝাঁক প্রতিভাবান নেতৃত্বের, এক সুন্দর আবাসভুমি পার্বত্য চট্টগ্রামের।

আমাদের মেধায় নির্মিত হবে আগামীর ইতিহাস।

…………………………………………………………………………………………..
* লেখকবৃন্দ বনযোগীছড়া কিশোর কিশোরী কল্যাণ সমিতির সদস্য।

এই বিভাগের আরো পোস্ট

Tags: